মিন্নির বাবা মোজাম্মেল হোসেন কিশোর ও ছোটভাই আবদুল মুহিত কাফি কারাগারে উপস্থিত ছিলেন।

বরগুনার আলোচিত রিফাত শরীফ হত্যা মামলার আসামি তার স্ত্রী আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি জামিনে মুক্তি পেয়েছেন। মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে তাকে বরগুনা জেলা কারাগার থেকে মুক্তি দেওয়া হয়।

এ সময় মিন্নির বাবা মোজাম্মেল হোসেন কিশোর ও ছোটভাই আবদুল মুহিত কাফি কারাগারে উপস্থিত ছিলেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মিন্নির আইনজীবী মাহবুবুল বারী আসলাম।

এর আগে বিকেল ৪টায় বরগুনার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক এম জাহিদ হাসান স্বাক্ষরিত রিলিজ অর্ডার বরগুনা জেলা কারাগারে পৌঁছায়।

গত সোমবার (২ সেপ্টেম্বর) হাইকোর্টের দেওয়া জামিন স্থগিত চেয়ে করা রাষ্ট্রপক্ষের আপিল আবেদনের ওপর নো-অর্ডার দেন সুপ্রিম কোর্টের চেম্বার আদালত। এর ফলে তার জামিনে আর কোনো বাধা নেই বলে জানান আইনজীবীরা।

গত ২৬ জুন বরগুনা সরকারি কলেজের সামনে সন্ত্রাসীরা প্রকাশ্যে রামদা দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে রিফাত শরীফকে। গুরুতর আহত রিফাতকে ওইদিন বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে বিকেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। এ ঘটনায় রিফাতের বাবা দুলাল শরীফ বাদী হয়ে ১২ জনের নাম উল্লেখ ও পাঁচ-ছয় জনকে অজ্ঞাত আসামি করে বরগুনা থানায় একটি হত্যা মামলা করেন।