জাতীয় শ্রমিক লীগের ১২তম জাতীয় সম্মেলনের উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা। এর আগে, শনিবার (৯ নভেম্বর) সকাল থেকে সংগঠনের জাতীয় সম্মেলন উপলক্ষে রাজধানীর ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে জড়ো হতে থাকেন জাতীয় শ্রমিক লীগের নেতাকর্মীরা।

বেলা পৌনে ১১টায় জাতীয় শ্রমিক লীগের সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত হন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ সময় শ্রমিক লীগের নেতাকর্মীরা স্লোগানের মাধ্যমে সম্মেলনের প্রধান অতিথি ও সংগঠনের সাংগঠনিক নেত্রী শেখ হাসিনাকে অভিবাদন জানান।

পরে জাতীয় সংগীতের মাধ্যমে শ্রমিক লীগের সম্মেলনের আনুষ্ঠানিকতা শুরু করা হয়।পরে পায়রা আর বেলুন উড়িয়ে সম্মেলন উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী।

সম্মেলন উপলক্ষে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে বিশাল সম্মেলন মঞ্চ ও প্যান্ডেল নির্মাণ ছাড়াও সম্মেলন স্থল ও আশপাশের সড়কগুলোকে বর্ণাঢ্য সাজে সাজিয়ে তোলা হয়েছে। এতে আওয়ামী লীগ ও শ্রমিক লীগের ইতিহাস ঐতিহ্যের পাশাপাশি বর্তমান সরকারের বিভিন্ন উন্নয়ন কর্মকাণ্ড তুলে ধরা হয়েছে।

সম্মেলনে কেন্দ্রীয় কমিটিসহ সারাদেশে সংগঠনটির ৭৮টি সাংগঠনিক জেলা থেকে সকাল ৭টার পর থেকে বৃষ্টি উপেক্ষা করে সম্মেলন স্থলে উপস্থিত হয়েছেন শ্রমিক লীগের প্রায় ১৬ হাজার কাউন্সিলর ও ডেলিগেটস।

২০১২ সালের ১৯ জুলাই সংগঠনের সর্বশেষ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

শ্রমজীবী মানুষের দাবি আদায় ও অধিকার প্রতিষ্ঠায় ১৯৬৯ সালের ১২ অক্টোবর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় শ্রমিক লীগ প্রতিষ্ঠা করেন। শুরুতে এটি আওয়ামী লীগের সহযোগী সংগঠন হিসেবে থাকলেও বর্তমানে ভ্রাতৃপ্রতীম সংগঠন হিসেবে কাজ করছে।